পুরোদমে চলছে ঐতিহাসিক চরমোনাই মাহফিলের প্রস্তুতি

নভেম্বর ২২ ২০২০, ১৪:২৫

বরিশাল জেলার ঐতিহাসিক চরমোনাই দরবার শরীফের এ মাহফিল বছরে দুবার হয়। একবার অগ্রহায়ণে। আরেকবার ফাল্গুনে। তিনদিন ব্যাপী হওয়া এ মাহফিলে অংশ নেন দেশ-বিদেশের লাখ লাখ মানুষ। দেশের তৃতীয় বৃহত্তম জমায়েত হয় চরমোনাই ময়দানের এ মাহফিল। ধারণা করা যায় তাবলিগের বিশ্ব ইজতেমার পরে দেশের সবচেয়ে বড় জমায়েতও এটি। লাখ লাখ মুসল্লির অংশগ্রহণে শুরু হওয়া মাহফিলে উদ্বোধনী বয়ান করেন চরমোনাই পীর আলহাজ হজরত মাওলানা মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম। মাহফিলে অংশ নেন দেশ-বিদেশের শীর্ষ আলেমরাও।

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দূরত্ব বজায় রাখার উপর জোর দিচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। এমন পরিস্থিতিতে এবারের চরমোনাই মাহফিল কি হবে? চরমোনাইপন্থি কারো কারো মনে এমন সংশয় বিরাজ করছে।

তাই বিষয়টি সম্পর্কে জানতে চেয়েছিলাম মাহফিলের এন্তেজামিয়া কমিটির সেক্রেটারি জেনারেল খন্দকার গোলাম মাওলার কাছে। তিনি জানান, ‘করোনা পরিস্থিতিতে এবারের চরমোনাই মাহফিল নিয়ে কোনো সংশয় নেই। যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হবে চরমোনাইয়ের মাহফিল।’

একই কথা বলছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর যুগ্নমহাসচিব গাজী আতাউর রহমান। তিনি জানান, ‘আমরা যথাযথ প্রস্তুতি নিচ্ছি। যথা সময়ে মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।’

বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটির সেক্রেটারি জেনারেল খন্দকার গোলাম মাওলা আরও জানান, ‘করোনা পরিস্থিতি মাহফিলে তেমন প্রভাব পড়বে না। প্রশাসনের সাথে কথা বলেই আমরা মাহফিল অনুষ্ঠানের বিষয়ে প্রস্তুতি নিচ্ছি।’

তিনি আওয়ার ইসলামের এ প্রতিবেদককে জানান, ‘আমাদের মাহফিলের তারিখ ঘোষণা হয়েছে আরও একবছর পূর্বে। এ বছর আগামী ২৭, ২৮ ও ২৯ নভেম্বর’২০ তারিখে চরমোনাই মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। আমরা সে অনুযায়ী প্রস্তুতি গ্রহণ করছি। ইতোমধ্যে আমাদের মাঠ গোছানোর কাজ শুরু হয়েছে। আশা করি শীঘ্রই আমরা মাঠকে মাহফিলের উপযোগী করে তুলতে পারবো।’